ChannelPadma Privacy Policy

প্রচন্ড গরমে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত শিশুরা

প্রচন্ড গরমে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত শিশুরা
CHANNEL PADMA bd 2022

প্রচন্ড গরমে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত শিশুরা : সপ্তাহ জুড়ে রয়েছে তীব্র গরম। আর এই গরমে প্রতিদিনই বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা। অভিভাবকেরা তাদের সন্তানদের নিয়ে হাসপাতালগুলোতে ভীড় করছে প্রতিদিন।

ফরিদপুর শিশু হাসপাতালে গত সাত দিনে আউটডোরে স্বাভাবিকের চেয়ে দ্বিগুন বেড়েছে রোগী। তাদের অধিকাংশ ঠান্ডা, জ্বর, ডায়রিয়া, হাত-পায়ে চুলকানি সমস্যা জনিত।

শহরের ডা. জাহেদ মেমোরিয়াল শিশু হাসাপতালে গিয়ে দেখা যায়, জেলা সদর ও আশে-পাশের এলাকা থেকে অভিভাবকেরা তাদের প্রিয় সন্তানকে নিয়ে ভীড় করেছে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে।

তবে ফরিদপুর অঞ্চলের বিশেষায়িত এই হাসপাতালের চিকিৎসকেরা বলছেন এতে ভয় পাওয়ার কোন কারণ নেই। শিশুদের অভিভাবকেরা একটু সচেতন হলেই সাময়িক এই সমস্যা থেকে উত্তোরন হওয়া সম্ভব।

শিশু হাসপাতালের তথ্য মতে, গত ৬/৭ দিনের গরমে শিশু রোগীর সংখ্যা বেড়েছে দ্বিগুণ। শুধু গরমের কারণে অসুস্থ্ হয়ে আউটডোরে চিকিৎসা নিতে আসা শিশুর সংখ্যা ছিল প্রতিদিন গড়ে ৪শ থেকে ৫শ।

গরমে প্রতিদিনই বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা।

প্রচন্ড গরমে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত শিশুরা

শহরতলীর তাম্বুল খানা থেকে আসা গৃহিনী সাবিনা বেগম। তার দুই বছরের শিশু সন্তান সাইদ শেখকে নিয়ে শহরের শিশু হাসপাতালের এসেছেন। তিনি জানান, দুই দিন হলো বাচ্চার ঠান্ডা জনিত জ্বর হয়েছে।

ডাক্তার দেখানো হয়েছে। আমার মতো অনেক মা তাদের শিশুদের নিয়ে ভীড় করছে এই হাসপাতালে। রোগীর প্রচুর চাপ।

শহরের টেপাখোলা এলাকা থেকে আসা শাপলা সাহা। তিনি বলেন, প্রচন্ড গরমের আমার বাচ্চার শরীরের বিভিন্ন স্থানে চুলকানি ও শরীরের বিভিন্ন জায়গায় ছোট ছোট ফোট উঠেছে। কিছু খাচ্ছে না। হাসপাতালে রোগীর চাপ রয়েছে, অপেক্ষায় আছি ডাক্তার দেখানোর জন্য।

ডা. জাহেদ মেমোরিয়াল শিশু হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. মৃত্যুঞ্জয় সাহা স্বপন বলেন, গরমের তীব্রতা বেড়ে যাওয়ায় প্রতিদিনই ৪’শ থেকে ৫’শ শিশু অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসছে।

তিনি বলেন, এই সময়ে শিশুরা যেনো ঘরের বাইরে না যায়, বেশি বেশি ঠান্ডা খাবার বা স্যালাইন খাওয়ানো যেতে পারে। প্রয়োজনে চিকিৎকের পরামর্শ নিতে হবে।

প্রচন্ড গরমে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত শিশুরা :

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.