সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:২০ পূর্বাহ্ন

আটা কিনতে গিয়ে স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের শিকার

পদ্মা ডেস্ক
  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ১৯ আগস্ট, ২০২১

ফরিদপুরের নগরকান্দায় ৫ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে কামাল ফকির (৩২) নামের এক যুবককে আটক করেছে নগরকান্দা থানা পুলিশ। এ ঘটনায় আরেক অভিযুক্ত জামাল মুন্সি (৪৫) নামের এক ব্যক্তি পলাতক রয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৯ আগস্ট) দুপুরে নগরকান্দা উপজেলার পৈলানপুট্টি গ্রাম থেকে কামাল মুন্সিকে আটক করা হয়। কামাল ফকির নগরকান্দা উপজেলার চরযশোরদী ইউনিয়নের পৈলানপুট্টি গ্রামের কাশেম ফকিরের ছেলে। সে বিবাহিত এবং পেশায় নসিমন চালক।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বুধবার (১৮ আগস্ট) সন্ধ্যায় নগরকান্দা উপজেলার চরযশোরদী ইউনিয়নের বাসিন্দা এবং পৈলানপুট্টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রী আটা ক্রয় করার জন্য বাড়ীর পাশের গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার কানারবাজারে যায়। বাজারের বাবু সরদারের পরিত্যাক্ত দোকান ঘরে ওই স্কুলছাত্রীকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে জামাল মুন্সি এবং কামাল ফকির।

মেয়েটির মা বলেন, বৃহস্পতিবার সকালে আমার মেয়ে ধর্ষণের ঘটনা আমাদের জানায়। এ সময় কামালকে ডেকে এনে জানতে চাইলে, ধর্ষণ করার বিষয়টি আমাদের কাছে কামাল স্বীকার করে। এ ঘটনায় নগরকান্দা থানায় খবর দেয়া হলে, বৃহস্পতিবার দুপুরে পৈলানপুট্টি গ্রাম থেকে কামালকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তবে পুলিশ আসার সংবাদ পেয়ে, জামাল এলাকা থেকে পালিয়ে গেছে।

পলাতক জামাল মুন্সি (৪৫) গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার মহারাজপুর ইউনিয়নের মুন্সিনারানপুর গ্রামের রওশন মুন্সির ছেলে। সে বিবাহিত এবং পেশায় কাঠমিস্ত্রি।

নগরকান্দা থানার এস আই আবুল কালাম বলেন, স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে এক যুবককে আটক রাখা হয়েছে এমন খবর পেয়ে, নগরকান্দা উপজেলার পৈলানপুট্টি গ্রাম থেকে কামাল মুন্সি নামের এক যুবককে আটক করা হয়েছে। যেহেতু ঘটনাস্থল গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার মধ্যে, তাই মামলাটি কোন থানায় হবে সে বিষয়ে এখনও সিদ্ধান্ত হয়নি।

 

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর