বুধবার, ২৫ মে ২০২২, ০৬:২৭ পূর্বাহ্ন

‘কয়দিনের জন্য খাওনের চিন্তা দুর হলো’

মেজবাহ উদ্দিন, চরভদ্রাসন থেকে
  • আপডেটের সময় : সোমবার, ৩০ আগস্ট, ২০২১

ফরিদপুরের চরভদ্রাসন উপজেলার চরঝাউকান্দা ইউনিয়নে পানিবন্দি অসহায় ২শ’ পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। সোমবার (৩০ আগস্ট) দুপুরে পদ্মা নদী বেষ্টিত ওই ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামের জামে মসজিদ সংলগ্ন সড়কে দুর্গত পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

ত্রাণ বিতরণ করেন ফরিদপুর সদর উপজেলার সহকারি কমিশনার (ভুমি) সৈয়দ মোঃ আল-আমিন, ভারপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ মোতালেব হোসেন মোল্যা, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা এস এম মাহমুদুল হাসান ও সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ ফরহাদ হোসেন মৃধা।

জানা যায়, প্রতি পরিবারের জন্য ১০ কেজি চাল, ২ কেজি আটা, ৫ কেজি আলু, ১ কেজি ডাল ও এক কেজি লবন সহ ২শ’ পরিবারের মাঝে মোট ২ মে.টন. চাল, ৪০০ কেজি আটা, ১ মে.টন আলু, ২শ’ কেজি লবন ও ২শ’ কেজি ডাল বিতরণ করা হয়।

ত্রাণ সামগ্রী হাতে পেয়ে রাহেলা বেগম বলেন, চরাঞ্চলের ফসলী মাঠ-ঘাট ও রাস্তাগুলো নিম্নাঞ্চল হওয়ায় বর্ষা মৌসুম এলেই সব জায়গা ডুবে যায়। আমাদের খুব কষ্টে দিন কাটাতে হচ্ছে। ত্রাণ পেয়ে আপাততঃ কয়দিনের জন্য খাওনের চিন্তা দুর হলো।

ত্রাণ সামগ্রী হাতে পেয়ে কুদ্দুস শেখ বলেন, পানি বাড়ায় আমরা আটকে আছি। বসতবাড়ি থেকে বের হতে পারিনা। খুব কষ্টে দিন পার করছিলাম। খাদ্য সামগ্রী যা পেয়েছি তা দিয়ে কয়েকদিন ভালোভাবে চলতে পারবো।

ভারপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ মোতালেব হোসেন মোল্যা জানান, জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে পানিবন্দি এসকল মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে পানিবন্দি সকল পরিবারকে সহায়তা প্রদান করা হবে।

প্রসঙ্গত, পদ্মার পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় চরভদ্রাসন উপজেলার চারটি ইউনিয়নের প্রায় ২হাজার পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। এছাড়া ওই সকল এলাকাগুলোতে দেখা দিয়েছে নদী ভাঙ্গন। ইতিমধ্যেই ২০টি বসতবাড়ি ও ফসলী জমি বিলীন হয়ে গেছে। এছাড়া ভাঙ্গন হুমকিতে রয়েছে বসতবাড়ি, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, কমিউনিটি হাসপাতাল সহ বিভিন্ন স্থাপনা।

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর